পুলিশি বাধাঁয় পন্ড শিক্ষকদের কর্মসূচী

বাংলার মানুষ রিপোর্টঃ এমপিওভুক্তির দাবিতে শিক্ষক-কর্মচারীরা লাগাতার অবস্থান কর্মসূচি পুলিশের বাধার মুখে প- হয়ে গেছে। রাজধানীর জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে রবিবার সকালে এই কর্মসূচি শুরুর কথা ছিল। ২০১৮-১৯ অর্থবছরে প্রস্তাবিত বাজেটে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এমপিওভুক্তির বিষয়ে সুনির্দিষ্ট দিক-নির্দেশনা না থাকায় জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে সকাল ৯টা থেকে কর্মসূচি পালনের জন্য ‘শিক্ষক-কর্মচারী ফেডারেশন’ এর ব্যানারে শিক্ষক-কর্মচারীরা আসতে থাকেন। গতকাল সকাল সাড়ে ৯টায় পুলিশ এসে তাদের অবস্থান কর্মসূচিতে বাধা দেয়। পুলিশ এ সময় বলে, আপনারা এখান থেকে সরে যান। এখানে থাকা যাবে না। নন-এমপিও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান শিক্ষক-কর্মচারী ফেডারেশনের সভাপতি গোলাম মাহমুদুন্নবী ও সাধারণ সম্পাদক বিনয় ভূষণ রায়কে পুলিশ আটক করে নিয়ে গেছে বলে আন্দোলনকারীরা অভিযোগ করেছেন।
সংগঠনটির সহসভাপতি শফিকুল ইসলাম বলেছেন, সকাল ৯টার পর থেকে তারা প্রেসক্লাবের সামনে কর্মসূচির পালনের জন্য আসতে থাকেন। কিন্তু পুলিশ সেখানে তাদের বসতে বাধা দেয়, তাদের সরিয়ে দেয়। এর মধ্যেই সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদককে পুলিশ নিয়ে যায়। তবে দাবি পূরণ না হওয়া পর্যন্ত তাদের আন্দোলন চলবে।
এর আগে মাহমুদুন্নবী বলেছেন, ২০১৮-১৯ অর্থবছরে প্রস্তাবিত বাজেটে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এমপিওভুক্তির বিষয়ে সুনির্দিষ্ট দিক-নির্দেশনা নেই। আমাদের জন্য বাজেটে কোনো বরাদ্দ রাখা হয়নি। এতে আমরা হতাশ।
সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক বিনয় ভূষণ রায় বলেন, আমরা প্রধানমন্ত্রীর প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়নে সারা দেশ থেকে এসে প্রেসক্লাবে অবস্থান নিয়েছি। কিন্তু পুলিশ আমাদের সেখান থেকে তুলে দেয়।
এমপিওভুক্তির দাবিতে নন এমপিও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষক-কর্মচারীরা গত বছরের ২৬ ডিসেম্বর থেকে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে লাগাতার কর্মসূচি শুরু করেন। নন-এমপিও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান শিক্ষক-কর্মচারী ফেডারেশনের ডাকে টানা ওই অবস্থান ও অনশনের একপর্যায়ে গত ৫ জানুয়ারি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পক্ষ থেকে তার তৎকালীন একান্ত সচিব সাজ্জাদুল হাসান সেখানে গিয়ে আশ্বাস দেন। এরপর শিক্ষক-কর্মচারীরা আন্দোলন কর্মসূচি স্থগিতের ঘোষণা দেন।

Share This: