নওগাঁয় পারিবারিক কলহে অন্তঃসত্ত্বা  বধুর আত্বহত্যা

নওগাঁ প্রতিনিধিঃ নওগাঁর আত্রাইয়ে পারিবারিক কলহে অন্তঃসত্ত্বা  বধুর চায়না রানী(২০) আত্বহত্যার খবর পাওয়া । ঘটনাটি উপজেলার হাটকালুপাড়া ইউনিয়নের বড়দাপাড়া গ্রামে সোমবার রাতে ঘটছে। ময়না তদন্তের জন্য লাশ উদ্ধারকরে নওগাঁ মর্গে পাঠিয়েছে আত্রাই থানা পুলিশ।
পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শী সূত্র, বিয়েরপর হতে চায়না রাণীকে শারীরিক ও মানসিকভাবি নির্যাতন করে আসছিলো পরিবারের লােকজন। মেয়ের পরিবারের ধারণাছিলো সন্তান হলে তাদের সমস্যাগুলো লাঘব হবে।  ৭ মাসের অন্তঃসত্ত্বা হবার পরও বিভিন্ন নির্যাতনের স্বীকার হতে হয়েছে মৃত চায়না রাণীকে। অন্যান্য দিনের ন্যায় সোমবার রাত মৃতার স্বামী নির্যাতন করে রুগী দেখার নামকরে বাহিরে চলগল জীবনের মান খুজে না পেয়ে শয়নঘরে ফ্যানের সাথে ওরনা জড়িয়ে আতহত্যা করে চায়না। স্বামী  ষষ্ঠি কুমার আনুমানিক রাত্রি ১টারদিক বাড়ী এসে ঘড়ের দরজা ভেতর থেকে আটকানো দেখে এবং ডাকাডাকি করলে কানে সাড়া না পেয়ে জানালা দিয় উঁকিদিয়ে ফ্যানের সাথে চায়নাকে ঝুলতে দেখে। চিতকার শুনে প্রতিবেশিরা এসে ঘড়ের টিন খুলে মৃতদহ উদ্ধার করে।
আত্রাই থানা ওসি মোসলেম উদ্দিন বলেন, ময়না তদন্তের জন্য লাশ নওগাঁ মর্গে পাঠানো হয়েছে। রিপোট এলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Share This: