করোনাভাইরাসের তথ্য দিবে মোবাইল অ্যাপ

করোনাভাইরাস সম্পর্কে সারা বিশ্বের চলমান পরিস্থতির সঠিক তথ্য ও প্রয়োজনীয় দিক নির্দেশনা দিবে এমনই এক মোবাইল অ্যাপ তৈরি করেছে একদল জৈব প্রকৌশলী।

করোনাভাইরাস নিয়ে যখন বিভিন্ন তথ্যের ছড়াছড়ি। সেসব তথ্যের মধ্যে কোনটা সত্যি আর কোনটা মিথ্যা আর কোনটা গুজব তা নির্ণয় করা কঠিন।সেসময় করোনা বিষয়ে সকল তথ্য একসাথে প্রদান, করোনার মহামারী চলাকালীন সময়ে কেমন থাকা উচিত আর আক্রাস্ত হলে কি কি করণীয় এমন সব তথ্য নিয়ে গ্রহণযোগ্য তথ্যের ভিত্তিতে অ্যাপটি বানিয়েছেন খুলনা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের বায়ো মেডিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগ থেকে পাস করা প্রকৌশলী কাজী আল মাসুম, যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (যবিপ্রবি) বায়ো মেডিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের প্রভাষক প্রকৌশলী মাহমুদুল হক মিলু, প্রকৌশলী আনিকা আঞ্জুম, খুলনা মেডিক্যাল কলেজের ছাত্র তাসনিম শাহরিয়ার,ও যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (যবিপ্রবি) বায়ো মেডিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের তৃতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী সজল বিশ্বাস।

গবেষক দলের সদস্যরা গ্রহণযোগ্য তথ্যের জন্য বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা ’(WHO), Worldometer and Johns Hopkins University ওয়েবসাইটের তথ্যে নিয়ে কোভিড-১৯ মোবাইল অ্যাপটি তৈরি করেছে।কোভিড-১৯ নামের এ অ্যাপটি ইতোমধ্যে বেশ সাড়া ফেলেছে। এ অ্যাপটি তৈরিতে মেইন ডেভেলপার হিসেবে ছিলেন যবিপ্রবির শিক্ষার্থী সজল বিশ্বাস।পাশাপাশি বিভিন্ন পরিসংখ্যানমূলক তথ্য তৈরি, বিশ্লেষণ, প্রস্তাবনা করা ইত্যাদি কাজে অংশ নিয়েছেন দলের বাকি সদস্যরা।

করোনাভাইরাস সম্পর্কিত বিভিন্ন তথ্য অ্যাপে সংযোজন করা হয়েছে : করোনা ভাইরাস কি? এটা আমাদের কিভাবে ক্ষতি করে? ভাইরাসে আক্রান্ত হলে কি কি করতে পারবেন আর কি কি করতে পারবেন না। সবসময় তথ্য স্বয়ংক্রিয় আপডেট হওয়া, গ্রাফ যার মাধ্যমে বর্তমানে সারা পৃথিবীসহ বাংলাদেশে কতজন করোনা আক্রান্ত হয়েছেন, কতজন সুস্থ হয়েছেন এমনকি কতজন মারা গিয়েছে তা সম্পর্কে বিস্তারিত জানা যাবে।

করোনা প্রতিরোধে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা এবং রোগতত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা ইন্সটিটিউট কি কি বাবস্থা নিতে বলেছে তার কিছু ভিডিও চিত্রও পাওয়া যাবে এই অ্যাপে।

এ ছাড়া কোয়ারেন্টাইন কি, এ সময় কিভাবে থাকতে হয়, কিভাবে IEDCR হটলাইনে যোগাযোগ করতে হয়, আক্রান্ত ব্যক্তি মারা গেলে তাকে কিভাবে সৎকার করতে হবে সে সম্পর্কে বিস্তর ধারনা সংযোজন করা হয়েছে অ্যাপটিতে।

অ্যাপের মেইন ডেভেলপার সজল বিশ্বাস জানান, অ্যাপটি বাংলা ভাষায় তৈরি করা হয়েছে। আর ব্যবহৃত সব তথ্যগুলো গ্রহণযোগ্য ও নির্ভরশীল সোর্স থেকে নেওয়া হয়েছে এবং যার রেফারেন্সগুলোও অ্যাপে সংযুক্ত আছে।

অ্যাপ নির্মাতাদের অন্য একজন কাজী আল মাসুম বাংলাদেশ জার্নালকে বলেন’ এই অ্যাপের বেশিরভাগ অংশই বাংলায়।আর সব গুলো তথ্য অথেনটিক সোর্স থেকে নেওয়ার চেষ্টা করেছি।আমাদের উদ্দেশ্য অহেতুক বিভিন্ন বিভিন্ন ওয়েবসাইট খোঁজার ঝামেলা বন্ধ করে একটি অ্যাপেই সকল দরকারি তথ্য সরবারহ করা।

যবিপ্রবির বায়ো মেডিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের প্রভাষক প্রকৌশলী মাহমুদুল হক মিলু জানান, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকসহ যে সকল অনলাইন সংবাদমাধ্যম থেকে সাধারণ মানুষ সংবাদ সংগ্রহ করে সে সব তথ্যের উৎস ঠিক থাকে না যার ফলশ্রুতিতে ভিত্তিহীন, মিথ্যা ও গুজব তথ্যগুলো মানুষ জানতে পারে। আর সাধারণ মানুষ অধিকাংশই এখন স্মার্টফোন ব্যবহার করে যার ফলে খুব সহজেই অ্যাপের মাধ্যমে করোনা সম্পর্কিত আসল তথ্য জানতে পারবে।

Share This: